[bangla_day], [english_date], [bangla_date], [hijri_date], [bangla_time]

শিক্ষা নিয়ে ব্যবসার সুযোগ দেবে না সরকার

প্রকাশঃ April 22, 2016 | সম্পাদনাঃ 22nd April 2016

imagesবেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার নামে যাদের মূল উদ্দেশ্য ব্যবসা ও প্রতারণা এমন প্রতিষ্ঠান সরকার রাখতে চায় না বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ।

তিনি বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার আগে যে শর্ত দেয়া হয় তা বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠান মানেন না। এসব প্রতিষ্ঠানকে আবার আইন করে নানা কারণে নিয়ন্ত্রণে আনা যাচ্ছে না। তবে যারা শর্ত না মেনে প্রতিষ্ঠান পরিচালনা করছেন তাদেরকে বুঝানোর চেষ্টা করবো।

শুক্রবার রাত সাড়ে ৮টায় ধানমন্ডিস্থ ইউনাইটেড ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটিতে “ইউনাইটেড গ্রুপ গবেষণা পুরুস্কার ২০১৬” প্রদান অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

গবেষনার উপর গুরুত্বারোপ করে তিনি বলেন, গতানুগতিক সার্টিফিকেটের জন্য উচ্চশিক্ষার প্রয়োজন নেই। নতুন জ্ঞান সৃষ্টি করতে হবে।

শিক্ষাকে অনেক ব্যবসায়ী বিনিয়োগের ক্ষেত্র বানানোর তীব্র সমালোচনা করে তিনি মুনাফার চিন্তা না করে দেশের কল্যাণে বেসরকারি  শিক্ষাখাতে বিনিয়োগ বাড়ানোর জন্য সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহ্বান জানান।

বিশ্বায়নের এই যুগে বিশ্বসমাজে বাংলাদেশকে সন্মানজনক আসনে অধিষ্ঠিত করতে উচ্চমানের জ্ঞানচর্চা, গবেষণা ও একটি জ্ঞান-ভিত্তিক সমাজ গঠনের বিকল্প নেই বলেও মন্তব্য করেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ।

তিনি বলেন, উচ্চশিক্ষার অন্যতম প্রধান অনুষঙ্গ হলো গবেষণা। গবেষণার মাধ্যমে সৃষ্টি হয় নতুন জ্ঞানের, যা জ্ঞানভিত্তিক সমাজ গঠনে অবদান রাখে। উচ্চশিক্ষা এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির ক্ষেত্রে গবেষণা জাতির উন্নয়নের জন্য অপরিহার্য।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ইউনাইটেড গ্রুপের এই মহতী উদ্যোগ দেশে গবেষণার মানোন্নায়নে সহযোগিতা করবে এবং বাংলাদেশি গবেষকদের জন্য একটি বড় প্রণোদনা, যা তাদের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির ক্ষেত্রে আন্তর্জাতিক মানের গবেষণায় উৎসাহিত করবে।

ইউনাইটেড গ্রুপের চেয়ারম্যান হাসান মাহমুদ রাজা বলেন, ইউনাইটেড গ্রুপ একটি গবেষণা বান্ধব প্লাটফর্ম তৈরি করতে চায়। যেখানে সম্ভাবনাময় গবেষকরা তাদের গবেষণা কার্যক্রম পরিচালন ও তা অব্যহত রাখার জন্য সব ধরনের সহায়তা লাভ করবেন। তিনি প্রায়োগিক গবেষণার উপর গুরুত্বারোপ করেন যা দেশের উৎপাদন খাত, অর্থনীতি ও সমাজের উন্নয়নে অবদান রাখবে। ইউনাইটেড গ্রুপ দেশের গবেষণা খাতে পৃষ্ঠপোষকতার জন্য উল্লেখযোগ্য পরিমান অর্থ সহায়তা প্রদান ও তা অব্যাহত রাখার অঙ্গীকার করেন তিনি।

অনুষ্ঠানে বিজ্ঞান ও প্রকৌশল, চিকিৎসা ও জীববিজ্ঞান, এবং কৃষি বিজ্ঞান এই তিনটি খাতে নির্বাচিত ২১ জন কৃতি গবেষককে ইউনাইটেড গ্রুপ গবেষণা পুরুস্কার ২০১৬ প্রদান করা হয়। প্রতি রিসার্চ পেপারের জন্য ১ লক্ষ টাকা ও সনদপত্র দেয়া হয়। ইউনাইটেড গ্রুপ প্রতি বছর ৪০ জন গবেষককে গবেষণা পুরুস্কার অব্যাহত রাখার ঘোষণা দেন।

এই বিভাগের আরো সংবাদ