[bangla_day], [english_date], [bangla_date], [hijri_date], [bangla_time]

শাকিব ডিভোর্স লেটার পাঠিয়েছে, কিন্তু আমি পাইনি

প্রকাশঃ December 5, 2017 | সম্পাদনাঃ 5th December 2017

বিনোদন ডেস্ক: তারকা দম্পতি শাকিব-অপুর গোপন বিয়ের খবর জানাজানি হয় চলতি বছর ১০ এপ্রিল। এরপর থেকে চলচ্চিত্র পাড়ায় গুঞ্জন ছিল শাকিব-অপুর সংসার নাকি টিকবে না! সেই গুঞ্জন সত্যি হলো। অবশেষে ভেঙে গেলো শাকিব-অপুর সংসার।

বর্তমানে নোলক ছবির শুটিং এ হায়দ্রাবাদে আছেন চিত্রনায়ক শাকিব খান। সেখান থেকে এ তথ্য নিশ্চিত করে তিনি জানান, ‘অপুর কাছে ডিভোর্সের চিঠি পাঠিয়েছি। ৩০ নভেম্বর হায়দ্রাবাদ আসার আগে ডিভোর্স পেপারে স্বাক্ষর করেছি।’

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, এ ডিভোর্সের আইনজীবী সুপ্রিম কোর্টের শেখ সিরাজুল ইসলাম সিরাজ।

অপরদিকে চিত্র নায়িকা অপু বিশ্বাস  জানিয়েছেন, ‘গণমাধ্যমের খবরে জেনেছি শাকিব আমাকে ডিভোর্স লেটার পাঠিয়েছে। কিন্তু আমি তা হাতে পাইনি। কারণ আমি বাসায় ছিলাম না।’

শাকিব তার পক্ষ থেকে ডিভোর্স দিয়েছেন এমনটা জানা গেছে। এ ব্যাপারে জানতে চাইলে এসব কথা বলেন অপু বিশ্বাস।

তিনি বলেন, বাসায় গেলে বলতে পারব চিঠি এসেছে কি-না। চিঠি পেলে কী ব্যবস্থা নেবেন- জানতে চাইলে অপু বলেন, কী আর ব্যবস্থা নেব। সে যদি এমন সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকে আমার আর কিছু করার থাকবে না। আমার পরিবারের লোকদের সঙ্গে বসে আলাপ করে সিদ্ধান্ত নেব। এমন কিছু হলে আমাদের দু’জনেরই ইমেজ নষ্ট হবে। আমাদের একমাত্র ছেলের জীবনটাও একটা ধাক্কার মধ্যে পড়বে। দেখা যাক কী হয়।

শাকিব-অপু গোপনে বিয়ে করেন ২০০৮ সালের ১৮ এপ্রিল। বিয়ের ৮ বছরের মাথায় তাদের কোল জুড়ে আসে এক পুত্রসন্তান। তার নাম আব্রাহাম খান জয়। ২০১৬ সালের ২৭ সেপ্টেম্বর কলকাতার একটি ক্লিনিকে সিজারের মাধ্যমে জয়ের জন্ম হয়।

এই বিভাগের আরো সংবাদ