[bangla_day], [english_date], [bangla_date], [hijri_date], [bangla_time]

বাংলাদেশে বৌদ্ধ ভিক্ষু হত্যায় নিউইয়র্কে প্রতিবাদ সমাবেশ

প্রকাশঃ May 15, 2016 | সম্পাদনাঃ 15th May 2016

b7814a962b902a6d6199c0ae720af3d3

নিউইয়র্ক : বাংলাদেশে বান্দরবান জেলার নাইক্ষ্যংছড়িতে ৭৫ বছর বয়সী এক বৌদ্ধ ভিক্ষুকে সন্ত্রাসীরা গলা কেটে হত্যার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে নিউইয়র্কে বসবাসরত বাংলাদেশী বৌদ্ধ সম্প্রদায়।

১৪ই মে শনিবার জ্যাকসন হাইটসের ডাইবারসিটি প্লাজায় আয়োজিত প্রতিবাদ সমাবেশে নিহত বৌদ্ধ ভিক্ষুর ছবি সম্বলিত বিভিন্ন প্লেকার্ড নিয়ে প্রবাসী বৌদ্ধ ভিক্ষু ও বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের লোকজন একত্রিত হন। এই সময় অন্যান্য সম্প্রদায়ের লোকজন, নেপাল, তিব্বতসহ বিভিন্ন দেশের প্রবাসীরাও তাদের সাথে দাড়িয়ে একাত্ততা প্রকাশ করেন।

প্রতিবাদ সমাবেশে সত্যানন্দ ভিক্ষু বলেন বৌদ্ধ ধর্ম শান্তির ধর্ম, অহিংসার ধর্ম, তাই একজন বৌদ্ধ ভিক্ষুকে হত্যার নিন্দা জানানোর ভাষা আমাদের জানা নেই। আমরা এই হত্যা কান্ডের তীব্র প্রতিবাদ জানাচ্ছি এবং হত্যাকারীদের দ্রুত গ্রেপ্তার করে বিচারের আওতায় আনার জন্য বাংলাদেশ সরকারের কাছে জোর দাবী জানাচ্ছি।

বাংলাদেশে হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ যুক্তরাষ্ট্র শাখার প্রধান উপদেষ্টা শিতাংশু গুহ বলনে মৌলবাদের উত্তানের কারণে বাংলাদেশে সংখ্যালঘুদের প্রতিদিনই খুন করা হচ্ছে। তারই ধারাবাহিকতায় আজ ৭৫ বছর বয়সী বৌদ্ধ ভিক্ষুকে খুন করা হল। স্বজনরা জড়িত আছে বলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী যে ভিত্তিহীন বক্তব্য রেখেছেন, তার তীব্র সমালোচনা করেন তিনি।

অজিত বড়ুয়া তার বক্তব্যে বলেন বৌদ্ধ ভিক্ষুরা শান্তিপ্রিয়, তারা শান্তির বাণী প্রচার করে, তাদের সাতে কারো বিবেদ নেই। কিন্তু যে নরপশুরা ধ্যানরত অবস্থায় এই বৌদ্ধ ভিক্ষুকে হত্যা করেছে, তাদের বিচার এই প্রবাস থেকে আমরা দাবী করছি।

প্রবীর বড়ুয়া বলেন বাংলাদেশে বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের উপর একের পর এক আক্রমন হচ্ছে, কিন্তু একটি ঘটনারও বিচার হচ্ছেনা বলেই আজ আরও একজন বৌদ্ধ ভিক্ষুকে প্রান দিতে হল। তিনি হত্যাকারীদের দ্রুত গ্রেপ্তারের দাবী জানান।

সুবীর বড়ুয়া তার প্রতিবাদে বলেন বাংলাদেশে আজ বিচারহীনতার সংস্কৃতি বিরাজ করছে। নারী, শিশু, সংখ্যালঘুরা প্রতিদিনি খুন হচ্ছে, ধর্ষিত হচ্ছে। তিনি বলেন একজন ৭৫ বছর বয়সী বৌদ্ধ ভিক্ষুকে যারা হত্যা করতে পারে, তাদের কোন ধর্ম নেই, তাদের কোন ধর্ম থাকতে পারেনা। তিনি এই হত্যাকান্ডের তীব্র নিন্দা জানান।

বক্তারা আরো বলেন মসজিদের ইমাম, মন্দিরের পুরোহিত বা বৌদ্ধ ভিক্ষু বাংলাদেশে কেউ আজ নিরাপদ নন। সরকার যদি এই মৌলাবাদীদের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থ্যা না নেন, তাহলে বাংলাদেশে এরকম হত্যাকান্ড আরো ঘটবে। বাংলাদেশেকে বিচারহীনতার সংস্কৃতি থেকে বেরিয়ে আসতে হবে।

প্রতিবাদ সমাবেশে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সমিরন বড়ুয়া, চিচিম বড়ুয়া, বেসান্তর বড়ুয়া, রুপক বড়ুয়া, মোহাম্মদ আলী বাবুল, বিনয় চাকমা, লারী মং, দুলাল সিং, শিশির বড়ুয়া, পাথই মং, দিলিপ বড়ুয়া, প্রমুখ। প্রতিবাদ সমাবেশের সার্বিক পরিচালনায় ছিলেন স্বীকৃতি বড়ুয়া।

এই বিভাগের আরো সংবাদ