[bangla_day], [english_date], [bangla_date], [hijri_date], [bangla_time]

পাইকগাছায় টর্নেডো আঘাতে লন্ডভন্ড ২০গ্রাম; মৃত্যু ১

প্রকাশঃ June 12, 2016 | সম্পাদনাঃ 12th June 2016

খুলনা প্রতিনিধি : খুলনার পাইকগাছায় টর্নেডো কবলে পড়ে ট্রলার ডুবিতে সীমা রাণী মন্ডল (৩০) নামে এক মহিলার করুণ মৃত্যু হয়েছে।

এছাড়া বজ্রপাতে দম্পতি আহত সহ ২০ গ্রামের তিন শতাধিক ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হয়ে ব্যাপক ক্ষয়-ক্ষতি হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে। শনিবার দুপুরের দিকে টর্নেডো দেলুটি ইউনিয়নে আঘাত হানলে প্রাণহানী সহ ক্ষয়ক্ষতির ঘটনা ঘটে।

দেলুটি ইউপি চেয়ারম্যান রিপন কুমার মন্ডল জানান, হঠাৎ টর্নেডো আঘাতে গেওয়াবুনিয়া এলাকা থেকে ১৫/২০ জনের যাত্রীবাহী একটি ট্রলার বারোহাড়িয়ার দিকে যাওয়ার সময় ভদ্রা নদীর বারোহাড়িয়া সমিল সংলগ্ন এলাকায় টর্নেডো কবলে পড়ে ডুবে যায়, এ সময় শশী মন্ডল নামে আট বছরের শিশু সন্তান কে বাঁচাতে গিয়ে সীমা রাণী মন্ডল নামে এক মহিলার করুণ মৃত্যু হয়।

সীমা গেওয়াবুনিয়া গ্রামের সুমন মন্ডলের স্ত্রী। এ ঘটনায় এক বৃদ্ধ নিখোঁজ রয়েছে। এছাড়া এসময় চিংড়ি ঘেরের বাসায় আশ্রয় নেয়া অবস্থায় বজ্রপাতে দেলুটি গ্রামের সামাদ সানার ছেলে সোবহান সানা (৩০) ও তার স্ত্রী পারভীন আক্তার গুরুতর আহত হয়। আহতদের তাৎক্ষণিক ভাবে স্থানীয় লোকজন উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে।

হতাহতের পাশাপাশি টর্নেডোর আঘাতে দেলুটি ইউনিয়নের, গেওয়াবুনিয়া, দিঘলিয়া, মধুখালী, যখারউলা, জিরবুনিয়া, দেলুটি, দারুণ মল্লিক, নোয়াই, হরিণ খোলা, কালিনগর, দুর্গাপুর, বিগরদানা, ফুলবাড়ি, তেলিখালী, গোপিপাগলা, হাটবাড়ী, সৈয়দখালী সহ কমপক্ষে ২০টি গ্রামের তিন শতাধিক কাঁচা ঘরবাড়ি এবং দারুণ মল্লিক মাধ্যমিক বিদ্যালয় সহ বিভিন্ন শিক্ষা ও ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান বিধ্বস্ত হয়ে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ আরো বাড়তে পারে বলে ইউপি চেয়ারম্যান রিপন কুমার মন্ডল জানিয়েছেন।

এই বিভাগের আরো সংবাদ