[bangla_day], [english_date], [bangla_date], [hijri_date], [bangla_time]

পঞ্চম ডি-৮ শিল্পমন্ত্রী সম্মেলনে যোগ দিতে কাল মিশর যাচ্ছেন আমু

প্রকাশঃ May 7, 2016 | সম্পাদনাঃ 7th May 2016

7503dc033eed52855b3fca515d26f593

মিশরের রাজধানী কায়রোতে অনুষ্ঠেয় পঞ্চম ডি-৮ শিল্পমন্ত্রী সম্মেলনে যোগ দিতে শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু রোববার সকালে মিশরের উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করবেন।
মিসরের রাজধানী কায়রোতে ‘৫ ম মিনিস্ট্রিয়াল মিটিং অন ডি-৮ ইন্ডাস্ট্রিয়াল কোঅপারেশন’ ৯ মে শুরু হবে। ১১ মে কায়রো ঘোষণার মধ্য দিয়ে এ সম্মেলন শেষ হবে। শিল্পমন্ত্রীর ১৩ মে দেশে ফেরার কথা রয়েছে।
সম্মেলনে শিল্পমন্ত্রী তিন সদস্যের বাংলাদেশ প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দেবেন। শিল্প মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মোঃ মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া ও উপসচিব মোঃ আমিনুর রহমান প্রতিনিধিদলে সদস্য হিসেবে অর্ন্তভূক্তরয়েছেন।
সফরকালে শিল্পমন্ত্রী মিশর সরকারের কয়েকজন মন্ত্রী ও ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সাথে দ্বি-পাক্ষিক বৈঠকে মিলিত হবেন। তিনি মিশরের বিভিন্ন চেম্বার ও শিল্পবণিক সংগঠনের নেতাদের সাথে মতবিনিময় করবেন।
সম্মেলনে বাংলাদেশ ছাড়াও ডি-৮ সদস্যভূক্ত অন্য দেশের শিল্পমন্ত্রীরা অংশ নেবেন। এর আগে উচ্চ পর্যায়ের কর্মকর্তাদের সভা অনুষ্ঠিত হবে। একই সাথে ১৩টি শিল্পখাতভিত্তিক টাস্ক ফোর্সের সভা অনুষ্ঠিত হবে। এসব সভায় ডি-৮ সদস্যভুক্ত দেশের ঊর্ধ¦তন সরকারি কর্মকর্তা এবং বেসরকারি শিল্প ও বাণিজ্য প্রতিনিধিদলের সদস্যরা সক্রিয়ভাবে অংশ নেবেন।
মিশরে অনুষ্ঠেয় এবারের সম্মেলনে শিল্পমন্ত্রী ডি-৮ সদস্য রাষ্ট্রগুলোর মধ্যে যৌথ বিনিয়োগ ও কারিগরি সহায়তা বৃদ্ধির ওপর গুরুত্ব দেবেন। তিনি সংস্থার সদস্য দেশগুলোর শিল্প উন্নয়ন ও তাদের মধ্যে দ্বি-পাক্ষিক ও বহুপাক্ষিক বাণিজ্য বৃদ্ধির লক্ষ্যে ডি-৮ সচিবালয় ও এর টাস্ক ফোর্সগুলোর কার্যক্রম শক্তিশালীকরণ এবং সদস্য দেশগুলোর চেম্বার ও ট্রেডবডির মধ্যে যোগাযোগ বৃদ্ধির তাগিদ দেবেন।
বাংলাদেশ, মিশর, ইন্দোনেশিয়া, ইরান, মালয়েশিয়া, নাইজেরিয়া, পাকিস্তান ও তুরস্কের উন্নয়ন সহযোগিতামূলক সংস্থা হিসেবে ডি-৮ পরিচিত। ১৯৯৭ সালের ১৫ জুন ইস্তাম্বুলের সদস্য রাষ্ট্রগুলোর সরকার ও রাষ্ট্র প্রধানদের শীর্ষ সম্মেলনের মাধ্যমে ডি-৮ আনুষ্ঠানিকভাবে যাত্রা শুরু করে। বিশ্বের প্রধান প্রধান মুসলিম দেশগুলোর আন্তর্জাতিক সংগঠন হিসেবে এটি ইতোমধ্যে বৈশ্বিক বাণিজ্যে গুরুত্বপূর্ণ অবস্থান তৈরিতে সক্ষম হয়েছে। এর সদস্যভূক্ত ৮টি দেশ বিশ্বের মোট জনসংখ্যার শতকরা ১৩ ভাগ এবং সারা বিশ্বের মুসলিম জনসংখ্যার শতকরা ৬০ ভাগের প্রতিনিধিত্ব করে। বর্তমানে বিশ্বের অন্যান্য দেশের সাথে ডি-৮ সদস্য রাষ্ট্রগুলোর বাণিজ্যের পরিমাণ ৫শ‘ বিলিয়ন মার্কিন ডলারেরও বেশি।

এই বিভাগের আরো সংবাদ