[bangla_day], [english_date], [bangla_date], [hijri_date], [bangla_time]

‘গুম হওয়া বিএনপি নেতাকর্মীদের পাওয়া যাবে না’

প্রকাশঃ April 29, 2016 | সম্পাদনাঃ 29th April 2016

Noman20160429155022

ঢাকা: আ.লীগ সরকারের সময় গুম হওয়া বিএনপি নেতাকর্মীদের আর পাওয়া যাবে না বলে এমন মন্তব্য করেছেন দলটির ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল নোমান।

তিনি বলেন, ‘আমাদের আশঙ্কা, তাদের সন্ধান আমরা হয়তো আর পাব না। কারণ, গুম-খুনের সম্পর্ক রাজনৈতিক। রাজনৈতিক কারণেই বিএনপি নেতাকর্মীদের গুম খুন করা হয়েছে।’

শুক্রবার (২৯ এপ্রিল) দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে জিয়া নাগরিক ফোরাম (জিনাফ) আয়োজিত এক নাগরিক সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ মন্তব্য করেন তিনি।

বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ‘নিখোঁজ’ ইলিয়াস আলীর সন্ধান এবং চলমান হত্যা, গুম ও রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাস বন্ধের দাবিতে এ সমাবেশের আয়োজন করা হয়।

আব্দুল্লাহ আল নোমান বলেন, ‘ইলিয়াস আলীসহ আমাদের যেসব নেতাকর্মীকে গুম করা হয়েছে, তাদের ফিরে পাওয়ার ব্যাপারে বিএনপি খুব একটা আশাবাদী হতে পারছে না। গুম-খুন, হত্যা-নির্যাতন ও লুটপাট ক্ষমতাসীন দলের (আওয়ামী লীগ) বৈশিষ্ট্য।’

তিনি আরও বলেন, ‘গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার জন্য আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে আমরা নির্বাচন চাই না, জনগণ তা মানবেও না।। কারণ, অতীতে আওয়ামী লীগের অধীনে নির্বাচনের নামে তামাশা ও ডাকাতি হয়েছে। চলমান ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনেও একই ঘটনা ঘটছে।’

নোমান বলেন, ‘আমাদের টাকা ‍লুট হচ্ছে। অথচ প্রধানমন্ত্রী ও অর্থমন্ত্রী বলেন, রাষ্ট্রীয় ব্যাংক থেকে টাকা চুরি হওয়ার কারণে আমাদের কোনো অর্থনৈতিক সমস্যা হবে না। অর্থাৎ ওই টাকা যারা লুট করেছে তাদেরকে জায়েজ করে দেওয়া হলো। এর সঙ্গে হয়তো তাদের দলের লোকজন অথবা তাদের ব্যবসায়ীরা সম্পৃক্ত। নতুবা তাদের সঙ্গে সম্পৃক্ত আন্তর্জাতিক চক্রকে এই টাকা দিয়ে দিয়েছে তারা। কারণ, তাদের কোনো দেশপ্রেম নেই। জনগণের প্রতি তাদের কোনো দায়বদ্ধতা নেই।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমরা যারা জনগণের জন্য রাজনীতি করি, তারা অবশ্যই এই অন্যায়ের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করব। আমরা যদি মানসিকভাবে শক্তিশালী হয়ে গুম-খুনের রাজনীতির বিরুদ্ধে শক্ত অবস্থান নিতে না পারি, তাহলে আমরা সফল হতে পারবো না।’

জিনাফ সভাপতি লায়ন মিয়া মোহাম্মদ আনোয়ারের সভাপতিত্বে এতে অন্যদের মধ্যে আরও বক্তব্য রাখেন-লেবার পার্টির চেয়ারম্যান ডা. মোস্তাফিজুর রহমান ইরান, বিএনপির প্রচার সম্পাদক জয়নুল আবদিন ফারুক, অর্থনৈতিক বিষয়ক সম্পাদক আব্দুস সালাম, সহ-স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক এবিএম মোশাররফ হোসেন প্রমুখ।

এই বিভাগের আরো সংবাদ