[bangla_day], [english_date], [bangla_date], [hijri_date], [bangla_time]

আন্দোলন স্থগিত ৭-ই মে পর্যন্ত স্থগিত

প্রকাশঃ April 9, 2018 | সম্পাদনাঃ 9th April 2018

স্বাধীনতা৭১ ডেস্কঃ

সরকারের দেয়া আশ্বাসে  কোটা সংস্কারের দাবিতে উঠা আন্দোলন আগামি মে মাসের প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত স্থগিত হয়েছে । আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের সাথে বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার পরিষদের বৈঠকে আন্দোলন স্থগিতের সিদ্ধান্ত হয়।

সোমবার বিকেলে সচিবালয়ে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, এনামুল হক শামীম, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক আফজাল হোসেন, সংস্কৃতিবিষয়ক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল, মুক্তযুদ্ধবিষয়ক সম্পাদক মৃণাল কান্তি দাস, উপ দফতর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য এস এম কামাল হোসেন, ডিএমপি কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া উপস্থিত ছিলেন।

আর কোটা সংস্কার আন্দোলনের কর্মী কানিজ ফাতেমা, আফসানা সাফা, একরামুল হক, আল ইমরান হোসাইন, লীনা মিত্র, আরজিনা হাসান, লুবনা জাহান প্রমুখ ছিলেন।প্রসঙ্গত, কোটা সংস্কারের দাবিতে গতকাল রোববার দুপুর আড়াইটা থেকে শাহবাগ মোড়ে শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি পালন করে আসছিলেন হাজার হাজার শিক্ষার্থী ও চাকরিপ্রার্থী। একই সঙ্গে সারাদেশের পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি পালিত হয়।

 

রাজধানীর শাহবাগ মোড়ে কোটা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের অবস্থানের কারণে শাহবাগসহ আশপাশের সড়ক দিয়ে সব ধরনের যান চলাচাল বন্ধ হয়ে যায়। দুর্ভোগে পড়েন রাজধানীবাসী। রাত সাড়ে ৮টার দিকে পুলিশ টিয়ারসেল, জলকামান ও লাঠিপেটা করে শিক্ষার্থীদের অবস্থান থেকে সরিয়ে দেয়। শুরু হয় সংঘর্ষ। থেকে থেকে সংঘর্ষে প্রায় অর্ধশতাধিক শিক্ষার্থী আহত হন। আটক করা হয় অসংখ্য শিক্ষার্থীকে। মধ্যরাতে হামলা চালানো হয় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামানের বাসভবনে। ভাঙচুর করে সেখানে আগুন ধরিয়ে দেয়া হয়।

এই বিভাগের আরো সংবাদ